আগে বিজ্ঞানীদের কাজের এত সমাদর ছিল না, বললেন মোদী

গুজরাতের সায়েন্স সিটিতে ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে সেন্টার স্টেট সায়েন্স কনক্লেভের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেখানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, অতীতে ভারতীয় বিজ্ঞানীদের অবদানকে স্বীকৃতি দেওয়া হত না।

১০ ও ১১ সেপ্টেম্বর দু দিন ব্যপী এই কনক্লেভের আয়োজন করা হয়েছে। ভারত যাতে আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে গবেষণা ও নিত্য় নতুন আবিস্কারের কেন্দ্র হয়ে উঠতে পারে সেব্যাপারেও মতামত দেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি রাজ্য সরকারগুলিকে অনুরোধ করেন যাতে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির ক্ষেত্রে আধুনিক পলিসি তৈরি করা যায়।

প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, যদি আমরা গত শতাব্দীর কথা মনে করি তবে আমরা দেখতে পাব যে কীভাবে ধ্বংস আর ট্রাজেডির মুখোমুখি হয়েছিল এই বিশ্ব। তবে বর্তমান যুগে প্রাচ্য অথবা পাশ্চাত্যে সর্বত্র বিজ্ঞানীরা নানা ধরনের আবিস্কারে নিয়োজিত রয়েছেন। পাশ্চাত্যে আইনস্টাইন, ফারমি, ম্যাক্স প্ল্যাঙ্ক, নিলস বোর, নিকোলার প্রসঙ্গ উল্লেখ করেন তিনি।

ভারতীয় বিজ্ঞানী সিভি রমন, জগদীশ চন্দ্র বসু, সত্যেন্দ্রনাথ বসু, মেঘনাদ সাহা, এস চন্দ্রশেখরের নাম উল্লেখ করেন তিনি। মোদী বলেন, আমরা বিজ্ঞানীদের কাজ সম্পর্কে আগে সেভাবে স্বীকৃতি দিতাম না। সেকারণেই সমাজের একটা বড় অংশ বিজ্ঞান সম্পর্কে এত উদাসীন ছিলেন।

করোনা ভ্যাকসিন তৈরিতে ভারতের বিজ্ঞানীদের অবদানের উচ্চ প্রশংসা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। গ্লোবাল ইনোভেশন ইনডেক্সে ৪৬তম স্থানে ভারত। তবে ২০১৫ সালে ভারত ছিল ৮১ তম স্থানে। এই উত্তোরণের কথাও উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।